1. dailysurjodoy24@gmail.com : admin2020 : TOWHID AHAMMED REZA
ভূরুঙ্গামারীতে আবদুল খালেক মেম্বার হয়ে জনগণের সেবক হতে চায়
মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ১১:১৫ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::

ভূরুঙ্গামারীতে আবদুল খালেক মেম্বার হয়ে জনগণের সেবক হতে চায়

  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৪ জানুয়ারী, ২০২২, ৮.৫৪ পিএম
  • ৭৪ বার পঠিত
আব্দুর রাজ্জাক কাজল ভূরুঙ্গামারী প্রতিনিধিঃ
কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারী উপজেলায় ষষ্ঠ ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৩ টি ইউনিয়নে ৩১ শে জানুয়ারি২০২২ অনুষ্ঠিত হবে। এর আগে ১১ ই নভেম্বর ২০২১ ৭ টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এই উপজেলায় মোট দশটি ইউনিয়ন পরিষদ। ষষ্ঠ ধাপে সদর ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের আব্দুল মালেক (খালেক) বৈদ্যুতিক পাখা ( ফ্যান ) মার্কায় নির্বাচিত হয়ে জনগণের সেবক হতে চায়।
আব্দুল খালেক বলেন আমি নিজে একজন নামাজী ব্যক্তি। ফজরের আজান হলে আমি নামাজ পড়ে বিভিন্ন পারায় হাঁটতে বের হই সেই সাথে ভালো-মন্দ সবার খোঁজ খবর নিতে পারবো।এবং সকাল ১০ টা থেকে  বিকেল ৫ টা পর্যন্ত ইউনিয়ন পরিষদ থেকে জনগনকে সেবা দিয়ে যাবো।আরও বলেন আমি মেম্বার হলে যার যার নামের যে কার্ড দেওয়া হবে সেগুলো ২৪ ঘন্টার ভিতরে প্রতিটি মোড়ে মোড়ে নামের লিস্ট ঝুলিয়ে দিবো। যাতে করে সবাই জানতে পারে কার কার নামে কার্ড হয়েছে। তারপর বলেন আমি বয়স্ক ভাতা বিধবা ভাতা প্রতিবন্ধী ভাতা পুষ্টির কার্ড ভিজিডি ভিজিএফ রেশন কার্ড ৪০ দিনের কর্মসূচী ও যে কোনো বরাদ্দ সরকারের দেওয়া যেকোন কার্ড যে যে যে কার্ডের প্রাপ্য তাদেরকে আমি বিনামূল্যে দিয়ে দিব।
সোনাতলীর দক্ষিণ পাড়ার কালাম একাব্বর হোসেন স্কুলপাড়ার আব্দুল হক জরিপ মন্ডল ঘাটপারের আয়নাল মাষ্টার কদমতলার মজনু মিয়াসহ আরো অনেকে বলেছেন আব্দুল খালেক একজন সৎ ও নামাজি ব্যক্তি। তাকে নির্বাচিত করলে এই ওয়ার্ডের মানুষ বিনামূল্যে সরকারের দেওয়া সুযোগ-সুবিধা পাবে।
পরিশেষে বৈদ্যুতিক পাখা ( ফ্যান) মার্কায় আব্দুল খালেক বলেন আমার জন্য একটি করে সবাই ভোট দিবেন ও সবাই দোয়া করবেন আমি যেন আগামী ৩১ শে জানুয়ারি নির্বাচিত হয়ে জনগণের পাশে থাকতে পারি।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

One response to “ভূরুঙ্গামারীতে আবদুল খালেক মেম্বার হয়ে জনগণের সেবক হতে চায়”

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved  2020 Daily Surjodoy
Theme Customized BY CreativeNews
%d bloggers like this: